Skip to main content
বিষয়সমূহ

ডিজিটাল সুস্থতা

TikTok এ, আমরা আমাদের কমিউনিটির সকলকে সুস্থ রাখতে কাজ করি। যেহেতু প্রযুক্তি আমাদের দৈনন্দিন জীবনের পরিপূরক হয়ে উঠেছে, তাই আপনার অনলাইন এনগেজমেন্টে যাতে একটি ইতিবাচক অভিজ্ঞতা থাকে তা সুনিশ্চিত করার জন্য আমরা সাহায্য করতে চাই। আপনার ডিজিটাল সুস্থতার সফরে আপনাকে সরঞ্জাম ও সংস্থান দিয়ে সহায়তার জন্য আমরা প্রতিশ্রুতিবদ্ধ, যাতে আপনি এমন একটি সামঞ্জস্য খুঁজে পেতে পারেন যা আপনার জন্য সঠিক। নিচে আপনি আমাদের কিছু বৈশিষ্ট্য এবং বিশেষজ্ঞের সংস্থান সম্বন্ধে জানতে পারবেন যা আমরা অ্যাপের মধ্যেই প্রদান করি এবং যা ব্যবহারকারী, পিতা-মাতা এবং পরিচর্যাকারীরা ব্যবহার করতে পারবেন।

ডিজিটাল সুস্থতা

অনলাইন এবং অফলাইন দুই ক্ষেত্রেই, আপনার সুস্থতা আমাদের কাছে গুরুত্বপূর্ণ। আপনার যাতে ইতিবাচক বোধ করেন এবং TikTok এ আপনার অভিজ্ঞতা যাতে নিয়ন্ত্রণে থাকে এবং প্রযুক্তির সাথে ভারসাম্য রেখে আপনার জন্য সঠিক এমন একটি পথের খোঁজ যাতে আপনি, পান এমনটাই আমরা চাই।

সুস্থতার বৈশিষ্ট্য

আমাদের ডিজিটাল সুস্থতার সরঞ্জাম আপনি কতটা সময় TikTok এ কাটাবেন তা আপনাকে আরও ভালোভাবে বুঝতে এবং নিয়ন্ত্রণ করতে এবং সমস্ত দর্শকের জন্য উপযুক্ত নাও হতে পারে এমন কন্টেন্ট সীমিত করতে সাহায্য করে। আপনার অঞ্চল ও অ্যাপটির সংস্করণের উপর নির্ভর করে এই সেটিংস ভিন্ন হতে পারে।

দৈনিক স্ক্রীন টাইম হল একটি বৈশিষ্ট্য যা প্রতিদিন কতটা সময় আপনি TikTok এ কাটাতে চান তার সিদ্ধান্ত আপনাকে নিতে দেয়। আরও জানুন

স্ক্রীন টাইমের ড্যাশবোর্ড হল একটি বৈশিষ্ট্য যা অ্যাক্সেস করা সহজ, আর আপনি কীভাবে এবং কখন TikTok ব্যবহার করেন তার সম্পর্কে স্পষ্ট ধারণা আপনাকে প্রদান করে। এই ইনসাইটগুলোর জন্য ‘সাপ্তাহিক স্ক্রীন টাইমের আপডেট’ সরাসরি যাতে আপনার ইনবক্সে পাঠানো না হয় তা ব্যাহত করতে আপনি বৈশিষ্ট্যটি নির্বাচন বহির্ভূতও করতে পারেন। এইভাবে, আপনি আপনার ব্যবহার বিষয়ে আরও ইচ্ছাপূর্বক সিদ্ধান্ত নিতে পারেন এবং এটি ব্যবহারের সময় আরও মনোযোগী হয়ে উঠতে পারেন। আরও জানুন

স্ক্রীন টাইমে বিরতি হল একটি বৈশিষ্ট্য যা আপনাকে নির্বিঘ্নে একটি নির্দিষ্ট পরিমাণ স্ক্রীন টাইমের পরে একটি বিরতি নেওয়ার জন্য উৎসাহিত করে, যেটি আপনি সেট করতে পারেন। আরও জানুন

সীমিত মোড হল একটি বিকল্প যা সেই সমস্ত কন্টেন্টের প্রকাশ সীমিত করে দেয় যা সব দর্শকের জন্য উপযুক্ত নাও হতে পারে। এটি আপনার অ্যাকাউন্টের সেটিংসের মাধ্যমে চালু বা বন্ধ করা যেতে পারে। এছাড়াও সীমিত মোড সেই বৈশিষ্ট্যগুলোর একটি যা পারিবারিক জোড়বন্ধন চালু থাকাকালীন একজন পিতা বা মাতা সরাসরি নিয়ন্ত্রণ করতে পারেন।


স্ক্রীন টাইমের উপর প্রতিফলনের পরামর্শ

আমার বন্ধুবান্ধব এবং প্রিয়জনদের কাছে আমার ডিজিটাল সুস্থতার প্রতিফলন

আপনি কীভাবে আপনার স্ক্রীন টাইম পরিচালনা করতে হবে তার শিক্ষা শুরু করা একজন তরুণ হন অথবা অনলাইনে একসাথে সময় কাটানোর জন্য আপনার পথ উন্নত করার দিকে তাকিয়ে থাকা একটি পরিবার হন, আমরা আমাদের ডিজিটাল সুস্থতার সফরে ভারসাম্য খুঁজতে আমরা সব পন্থাই ব্যবহার করতে পারি।

আপনাকে সহায়তার জন্য ইন্টারনেটের বিষয় নিয়ে বিশেষজ্ঞদের সাথে একসাথে তৈরি করা ৭ টি প্রশ্ন এখানে রইল, যার উপর প্রতিফলন করে আপনি একসাথে আপনার স্বাস্থ্যকর এবং সামঞ্জস্যপূর্ণ ডিজিটাল অভ্যাস তৈরি করতে পারেন।

  • অনলাইন না থাকাকালীন সময়টাতে আমি কী করতে চাই?
    আপনি কি বন্ধুদের সাথে যোগাযোগ করতে চান? আরাম করতে চান? বিনোদন চান? আপনি কিছু শুরু করার আগে সেটা থেকে বেরিয়ে কী করতে চান তা নিয়ে ভাবলে, আপনার আচরণকে কী অনুপ্রাণিত করছে তা এবং আপনি যেমন আশা করেছিলেন তেমনই অভিজ্ঞতা হচ্ছে কিনা তার প্রতিফলন করা সহজতর হবে।
  • আর কি অন্যকিছু আছে যা আমার করা উচিত?
    আমার কোন বিষয়গুলোতে অগ্রাধিকার দেওয়া প্রয়োজন? কোন ক্রমবিন্যাসে কাজগুলো করা সবথেকে ভালো হবে? আমরা যা করতে চাই এবং আমাদের যা করা প্রয়োজন তার মধ্যে আমাদের সবারই একটি ভারসাম্য প্রয়োজন – কখনও কখনও আমরা ভাগ্য আমাদের সাথে থাকে আর দুটো একই জিনিস হয়! একটি কাজ শুরু করার আগে এই বিষয়গুলো দ্রুত দেখে নিলে সেটি যে আপনার দিনের অবশিষ্ট সময়ে নেতিবাচক প্রভাব ফেলবে না তা নিশ্চিত করতে সাহায্য করে।
  • এই কার্যকলাপ কি আমার অবশিষ্ট পুরো দিনটা উন্নত করবে?
    আপনি কি পরে বন্ধুদের জন্য ডিনারে অনলাইনে দেখা কোনও রন্ধন প্রণালী চেষ্টা করে দেখবেন? আপনি কি আপনার দক্ষতা, অভিজ্ঞতা বা আগ্রহের উপর নির্ভর করে কন্টেন্ট তৈরি করবেন? আপনি যা করছেন তাতে কি কোনও বন্ধু বা পরিবারের সদস্য জড়িত হওয়ার জন্য আগ্রহ প্রকাশ করবেন? আমাদের সারাদিনে কীভাবে সবকিছু একসাথে যথাযথভাবে ব্যবহার্য হয়ে উঠতে পারে সেটা ভেবেই, আমরা যে কাজ করি তার বেশিরভাগটা ঠিক করি।
  • শুরুর সময়, কাজ চলাকালীন এবং সবশেষে – আমার কেমন মনে হচ্ছে?
    কীভাবে আমার অনুভূতির পরিবর্তন হয়েছে? আমার কি আরও বেশি ভালো লাগছে নাকি আরো বেশি খারাপ? আমি যেমন আশা করেছিলাম, আমার কি তেমনই মনে হচ্ছে? আমার যেমন মনে হচ্ছে তাতে কী প্রভাবিত হয়েছে? কোনও কাজ করার আগে, করার সময় এবং শেষ হওয়ার পরে আপনার কেমন মনে হচ্ছে তা ভাবার জন্য কিছুক্ষণ সময় নেওয়া একটি দারুণ অভ্যাস হয়ে উঠতে পারে এবং এটি কীভাবে আপনার সুস্থতাকে ইতিবাচক এবং নেতিবাচক দুই দিককেই প্রভাবিত করছে তা মন দিয়ে ভাবতে সাহায্য করতে পারে।
  • আমি আমার সময় কীভাবে কাটালাম?
    আপনি কি নতুন কিছু শিখলেন? আপনি কি অন্য কারও তৈরি করা কোনও ভিডিও দেখেছেন? আপনি কি নিজে কিছু তৈরি করেছেন? আমরা কী করেছি এবং শুধু তাই না, কতক্ষণ ধরে আমরা কিছু করেছি তা নিয়ে ভাবনা-চিন্তা আমাদের অনুপ্রেরণা বুঝতে এবং ভবিষ্যতে আমাদের কার্যকলাপ সম্বন্ধে আরও সতর্ক হতে সাহায্য করতে পারে।
  • আমি যা করব বলে ঠিক করেছিলাম আমি কি তা করেছি?
    আপনার কি কোনও পরিকল্পনা ছিল আর সেটি বজায় রেখেছিলেন? আপনার কি কোনও পরিকল্পনা ছিল না, আর সেটা আপনাকে কোথায় নিয়ে গেছিল? আপনি যা করেছিলেন সেটা করবেন বলেই কি আপনি আশা করেছিলেন? কোন বিষয়গুলো আপনার কার্যকলাপকে গাইড করেছিল? এইভাবে প্রতিফলন করলে তা নিজেদের আচরণ এবং আমাদের কোন বিষয় প্রভাবিত করতে পারে তা বুঝতে আমাদের সাহায্য করতে পারে।
  • আমার অভিজ্ঞতা কি আরো ভালো হতে পারতো?
    কোনটা ভালো হয়েছিল? কোনটা ভালোভাবে হয়নি? কেন? পরেরবার কোনটা অন্যভাবে করা যেতে পারে অথবা একটি কাজে কোন বিষয় আপনাকে সবচেয়ে বেশি আনন্দ দিয়েছে সেই সম্বন্ধে ভাবলে তা আরো ভালো কাজ করার জন্য আপনার পরবর্তী অভিজ্ঞতাকে আকার দিতে সাহায্য করতে পারে!

আমি আরও পরামর্শ কোথায় পেতে পারি?

কীভাবে আপনার ডিজিটাল অভ্যাস সূক্ষ্মভাবে সমন্বিত করবেন তা জানা প্রতিবন্ধকতামূলক হতে পারে – বিশেষ করে সেই পিতা-মাতা ও পরিচর্যাকারীদের জন্য যারা নিজেরাই হয়তো ডিজিটাল সুস্থতার একটি সফরে রয়েছেন। এখানে কিছু ইন্টারনেট বিষয়ে সংস্থান দেওয়া হল যা নিজের ডিজিটাল সুস্থতার ধারণা বিকাশের সাথে সাথে আপনার উপযোগী বলে মনে হতে পারে: